খুলনা শিপইয়ার্ড লিমিটেড নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি

খুলনা শিপইয়ার্ড লিমিটেড নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি  প্রকাশিত হয়েছে।খুলনা শিপইয়ার্ড লিমিটেড বাংলাদেশের খুলনা শহরের উপকন্ঠে অবস্থিত একটি জাহাজ নির্মাণ এবং মেরামত প্রতিষ্ঠান যা বাংলাদেশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় এবং বাংলাদেশ নৌবাহিনীর তত্ত্বাবধানে পরিচালিত হয়।সম্প্রতি প্রকাশিত খুলনা শীপইয়ার্ড চাকরি বিজ্ঞপ্তি র যাবতীয় তথ্য নিচে তুলে ধরা হল ।আগ্রহী ও যোগ্য ব্যক্তিদের আবেদন করার জন্য আহব্বান করা হচ্ছে।

 

পদের নামঃ নিম্ন করণিক কাম কম্পিউটার অপারেটর

পদের সংখ্যাঃ ০১ জন

বিবরণঃ উচ্চ মাধ্যমিক

বেতনঃ আলোচোনা সাপেক্ষে

বয়সঃ অনুর্ধ্ব ৩০ বছর

 

পদের নামঃ কেমিক্যাল মিক্সিং ওয়ার্কার

পদের সংখ্যাঃ ০১ জন

বিবরণঃ অষ্টম শ্রেনী

বেতনঃ আলোচোনা সাপেক্ষে

বয়সঃ অনুর্ধ্ব ৩০ বছর

 

পদের নামঃ ভল্কানাইজিং ওয়ার্কার

পদের সংখ্যাঃ ০১ জন

বিবরণঃ অষ্টম শ্রেনী

বেতনঃ আলোচোনা সাপেক্ষে

বয়সঃ অনুর্ধ্ব ৩০ বছর

 

পদের নামঃ ট্রিমিং ওয়ার্কার

পদের সংখ্যাঃ ০১ জন

বিবরণঃ অষ্টম শ্রেনী

বেতনঃ আলোচোনা সাপেক্ষে

বয়সঃ অনুর্ধ্ব ৩০ বছর

 

পদের নামঃ সহকারী নৌ স্থপতি / সহকারী প্রশাসনিক কর্মকর্তা/ সহঃকারী বাণিজ্যিক কর্মকর্তা/

পদের সংখ্যাঃ০৪ জন

বিবরণঃ স্নাতকোত্তর/ স্নাতক/উচ্চ মাধ্যমিক/ মাধ্যমিক/মাধ্যমিক বা সমমান পাশ

বেতনঃ আলোচোনা সাপেক্ষে

বয়সঃ অনুর্ধ্ব ৩৫ বছর

 

পদের নামঃ গাড়ি চালক/ কম্পাউন্ডিং/ সহঃকারী হিসাব রক্ষণ কর্মকর্তা/হিসাব সহকারী/অটো ডেন্টার

পদের সংখ্যাঃ ১১ জন

বিবরণঃ স্নাতকোত্তর/ স্নাতক/উচ্চ মাধ্যমিক/ মাধ্যমিক/মাধ্যমিক বা সমমান পাশ

বেতনঃ আলোচোনা সাপেক্ষে

বয়সঃ অনুর্ধ্ব ৩৫ বছর

পদের নামঃ সহকারী প্রকৌশলী/উপ সহকারী প্রকৌশলী / সহঃকারী হিসাব রক্ষণ কর্মকর্তা/হিসাব সহকারী/অটো ডেন্টার

পদের সংখ্যাঃ ১৬ জন

বিবরণঃ স্নাতকোত্তর/ স্নাতক/উচ্চ মাধ্যমিক/ মাধ্যমিক/মাধ্যমিক বা সমমান পাশ

বেতনঃ আলোচোনা সাপেক্ষে

বয়সঃ অনুর্ধ্ব ৩৫ বছর

 

পদের নামঃ উর্ধতন প্রশাসনিক কর্মকর্তা

পদের সংখ্যাঃ ০১ জন

বিবরণঃ স্নাতক বা সমমান পাশ

বেতনঃ আলোচোনা সাপেক্ষে

বয়সঃ অনুর্ধ্ব ৩৫ বছর

 

খুলনা শিপইয়ার্ড লিমিটেড নিয়োগ   সম্পর্কিত যাবতীয় তথ্য দেখতে নিচের ছবিটি লক্ষ্য করুন -বিস্তারিত তথ্য দেখুন নিচের ছবিতে।

আবেদনের শেষ তারিখ:  ২৪ এপ্রিল ২০২২

অনলাইন আবেদন:  www.khulnashipyard.com

১৯৪৭ সালের ভারত ভাগের পর পাকিস্তান ডেভেলপমেন্ট করপোরেশন (পিআইডিসি) খুলনায় একটি শিপইয়ার্ড নির্মাণের উদ্যোগ নেয়। এর জন্য তারা জন্য পশ্চিম জার্মানির মেসার্স স্টাকেন শনকে নিযুক্ত করে।

বাংলাদেশ স্বাধীনতা লাভ করার পর বাংলাদেশ স্টিল অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং করপোরেশন (বিএসইসি) এটি পরিচালনার দায়িত্ব পায়। প্রথম দিকে সফলভাবে পরিচালিত হলেও ৮০’র দশকের মাঝামাঝি সময় থেকে প্রতিষ্ঠানটি লোকশানে পড়তে থাকে। ৯০’র দশকে এসে এটি লোকসানের ভারে বন্ধ হওয়ার আশঙ্কায় পড়ে ও দেনার পরিমান ৯৩ কোটি ৩৭ লাখ টাকায় পৌছে। সেই সময়ে সরকার প্রতিষ্ঠানটিকে রুগ্ণ শিল্পপ্রতিষ্ঠান হিসেবে চিহ্নিত করে। পরে ১৯৯৯ সালের ৩ অক্টোবর বাংলাদেশ নৌবাহিনীকে প্রতিষ্ঠানটির দায়িত্ব দেওয়া হয়।

২০১৭-১৮ অর্থবছরে খুলনা শিপইয়ার্ড লিমিটেড ছোট বড় জাহাজ নির্মাণ ও মেরামতসহ বিভিন্ন খাতে প্রায় ১৬৫ কোটি টাকা আয় করে

About admin

Check Also

প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তর চাকরির নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০২২

প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তর স্থায়ী শূন্যপদ গুলোতে জনবল নিয়োগের জন্য নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে। প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তর ২২টি …

Leave a Reply

Your email address will not be published.